কে হচ্ছেন ফিফার বর্ষসেরা?

364

মেসি, রোনাল্ডো, নাকি নেইমার? অবশ্য প্রাথমিক তালিকায় এখন আছে ২৪ টি নাম। কিন্তু কে হচ্ছেন সেরা? ফিফার বর্ষসেরা পুরস্কার দেওয়া হয় ‘দ্য বেস্ট’কে। গত নয় বছরে বর্ষসেরা ফুটবলারের পুরস্কার মেসি ও রোনালদো ছাড়া জিততে পারেননি আর কেউই। বার্সেলোনা তারকা পাঁচবার আর রিয়াল মাদ্রিদ ফরোয়ার্ড চারবার জিতেছেন এই শিরোপা। তবে এবার ‘বেস্ট ফিফা মেনস প্লেয়ার’ জিতলে সবচেয়ে বেশিবার বর্ষসেরা হওয়া মেসির রেকর্ড স্পর্শ করবেন রোনালদো। গত মৌসুমে রিয়ালের লা লিগা ও চ্যাম্পিয়ন্স জয়ে গুরুত্বপূর্ণ অবদান ছিল পর্তুগিজ এই ফরোয়ার্ডের। চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ইতিহাসে প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে নকআউট পর্বে ৫০ গোলের মাইলফলক স্পর্শ করার পাশাপাশি নকআউট পর্বে টানা দুই ম্যাচে হ্যাটট্রিক করার কীর্তি গড়েন রোনালদো।
ইউরোপ সেরা এই প্রতিযোগিতার ইতিহাসে প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে এ মৌসুমে ১০০ গোলের মাইলফলকও স্পর্শ করেছেন রোনালদো। এছাড়া চ্যাম্পিয়ন্স লিগের এবারের আসরে ফাইনালে দুটিসহ সর্বোচ্চ ১২টি গোল করেন তিনি। রোনালদোর চেয়ে দলগত সাফল্য মেসির কম হলেও ব্যক্তিগতভাবে এবারও মৌসুমটা দারুণ কেটেছে আর্জেন্টিনা অধিনায়কের। ক্লাব ফুটবল ক্যারিয়ারে ৫০০ গোলের মাইলফলক স্পর্শ করেছেন তিনি। কাতালান ক্লাবটির সর্বোচ্চ গোলদাতাও ছিলেন তিনি।
পরিসংখ্যানের বিচারে মেসি- রোনালদোর মতো নেইমারের প্রাপ্তি অত বেশি না হলেও বার্সেলোনার হয়ে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচগুলোয় তার পারফরম্যান্স ছিল চমৎকার। চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ ষোলোর প্রথম লেগে পিএসজির কাছে ৪-০ গোলে হারের পর ফিরতি পর্বে কাতালান ক্লাবটির ৬-১ গোলের রোমাঞ্চকর জয়ের নায়ক ছিলেন তিনি। ওই ম্যাচের শেষদিকে দুই গোল করার পাশাপাশি শেষ মুহূর্তে সের্হিও রবের্তোকে দিয়ে গোল করান ব্রাজিলিয়ান এই ফরোয়ার্ড।
আর বরাবরের মতো এবারও দুর্দান্ত কেটেছে বুফনের। ইউভেন্তাসকে টানা তৃতীয়বার ঘরোয়া ডাবল সেরি আ ও কোপা ইতালিয়া জেতাতে বড় অবদান রাখেন ইতালির এই গোলরক্ষক। চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ফাইনালের আগপর্যন্ত মাত্র তিনটি গোল হজম করেছিল তার দল ইউভেন্তাস।
২০১৬-১৭ মৌসুমের পারফরম্যান্সের ওপর ভিত্তি করে ২০১৭ সালের পুরস্কারের জন্য যাদের নাম ঘোষণা করা হয়েছে তাদের মধ্যে রিয়াল মাদ্রিদের খেলোয়াড়দেরই আধিপত্য। বলতে গেলে এক এক করে সব তারকা ফুটবলারের নাম চলে এসেছে। এ তালিকায় আছেন পর্তুগিজ ফরোয়ার্ড রোনালদো, ক্লাব অধিনায়ক সার্জিও রামোস, মিডফিল্ডার টনি ক্রুস ও লুকা মডরিচ, ডিফেন্ডার মার্সেলো ও দানি কারভাহাল এবং গোলরক্ষক কেইলর নাভাস। এরা সবাই খেলেছিলেন চ্যাম্পিয়নস লিগ ফাইনালে। তালিকায় বার্সেলোনার তারকা লিওনেল মেসি, আন্দ্রেস ইনিয়েস্তা ও পিএসজিতে যাওয়া ফরোয়ার্ড নেইমার ডা সিলভা আছেন। আছেন ইতালিয়ান সিরি আ থেকে দুই জুভেন্টাস তারকা পাওলো দিবালা ও জিয়ানলুইজি বুফন। চ্যাম্পিয়নস লিগ ফাইনালে রিয়ালের কাছে হেরেছিল জুভরা। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ থেকে এ তালিকায় আছেন গত মৌসুমের সর্বোচ্চ গোলদাতা হ্যারি কেইন, এনগুলু কান্তে, অ্যালেক্সি সানচেজ, ইব্র্রাহিমোভিচ ও এডেন হ্যাজার্ড।
সেরা ১২ কোচের প্রাথমিক তালিকাও প্রকাশিত হয়েছে। এখানে আছেন রিয়ালের কোচ জিনেদিন জিদান, বার্সার লুইস এনরিকে, অ্যাটলেটিকোর ডিয়েগো সিমিওনে, চেলসির আন্তোনিও কন্তেসহ আরও কিছু নাম। চমক হয়ে এসেছে পেপ গার্দিওলা ও মাউরোসিও পচেত্তিনোর অন্তর্ভুক্তি। দুজনেই ক্লাবপর্যায়ে কোনো শিরোপা না জিতেও এ তালিকায় স্থান পেয়েছেন। জাতীয় দলের কোচদের মধ্যে ঠাঁই পেয়েছেন জার্মানির জোয়াকিম লো ও ব্রাজিলের তিতে।
বর্ষসেরা খেলোয়াড় নির্বাচনে গত বছরের ২০ নভেম্বর থেকে এ বছরের ২ জুলাই পর্যন্ত খেলোয়াড়দের অর্জন বিবেচনায় নেওয়া হবে। সেপ্টেম্বরের মাঝামাঝি সময়ে তালিকা তিন জনে নামিয়ে আনবে ফিফা। আর ২৩ অক্টোবর লন্ডনে ঘোষণা করা হবে ফিফা বর্ষ সেরা খেলোয়াড়ের নাম।
সাবেক তারকা ফুটবলারদের নিয়ে তৈরি করা হয় এর নির্বাচক প্যানেল। এদের মধ্যে ছিলেন ডিয়েগো ম্যারাডোনা, কাফু, এডউইন ফন ডার সার, কার্লোস পুয়োল, জে জে ওকোচার মতো কিংবদন্তি ফুটবলাররা। চূড়ান্ত ৩ ফুটবলারের তালিকা নির্বাচিত হবে জাতীয় দলগুলোর কোচ ও অধিনায়কের ভোট এবং নির্বাচিত মিডিয়াকর্মীদের ভোটে। কিন্তু কবে? জানার যে আর তর সইছে না।
তথ্যসূত্র: টিওআই, রয়টার্স

You might also like More from author

Leave A Reply

Your email address will not be published.